মোহনপুরে রাস্তা নির্মাণে অনিয়ম

102

তানোর (রাজশাহী) প্রতিনিধি : রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার ঘাষিগ্রাম ইউপির স্যামপুর-সিংহমারা রাস্তার প্রায় ১৮০০ মিটার রাস্তা নির্মাণে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে নির্মাণ কাজে নানা অনিয়ম-দূর্নীতি, নিম্নমাণের নির্মাণ সামগ্রী ব্যবহার, পোড়া মবিল ও আমদানি নিষিদ্ধ তরল বিটুমিন ব্যবহার এবং বৃস্টির মধ্যে কার্পেটিং কাজ করার অভিযোগ উঠেছে। এছাড়াও নিম্নমাণের বেড প্রয়োজনীয় পানি ব্যবহার করা হয়নি বেড তৈরীতে করা হয়নি প্রয়োজনীয় রোলার। চলতি বছরের ২১ জুন শুক্রবার বিকেল থেকে ওই রাস্তার নির্মাণকাজ শুরু হয়েছে। ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান মেসার্স আল-মদীনা কন্ট্রাকশন এই রাস্তা নির্মাণের কাজ করছেন বলে এসও নিশ্চিত করেছেন। তবে বার বার যোগাযোগের চেস্টা করা হলেও ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠানের দায়িত্বশীল কেউ কোনো বক্তব্য দিতে অপারগতা প্রকাশ করেছে। আবার রাস্তা নির্মাণের সুনিদ্রিষ্ট তথ্য জানাতে অপারগতা প্রকাশ করেছেন উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী।
স্থানীয়রা জানান, উপজেলা এলজিইডির কতিপয় কর্মকর্তাকে আর্থিক সুবিধা দিয়ে তার নেপথ্যে যোগসাজশে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এসব নিম্নমাণের সামগ্রী দিয়ে নির্মাণ কাজ করছে। যে কারণে স্থানীয়রা নির্মাণ কাজের অনিয়ম-দূর্নীতি নিয়ে বার বার এলজিইডি প্রকৌশলীকে অবগত করলেও তিনি এই বিষয়ে কোনো কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করেননি। স্থানীয়রা জানান, সরেজমিন অনুসন্ধান করলেই এই রাস্তা নির্মাণে ভয়াবহ অনিয়ম ও দূর্নীতির সত্যতা পাওয়া যাবে। স্থানীয়রা সরেজমিন অনুসন্ধান র্প্বূক যথাযথ ব্যবস্থা গ্রহণের জন্য সংশ্লিষ্ট বিভাগের উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের জরুরী হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন শ্রমিক বলেন, স্থানীয় সাংসদ ও ইউপি চেয়ারম্যানের নাম ভাঙ্গিয়ে এলজিইডির কর্মকর্তার মদদে ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান এসব অনিয়ম-দূর্নীতি করছে।
চলতি বছরের ২২ জুন শনিবার সকালে সরেজমিন দেখা গেছে, গুড়ি গুড়ি বৃস্টির মধ্যে পিচ দেয়ার কাজ চলছে। আবার অনেক দুর থেকে (গরম পিচ) পিচ দেয়ার সামগ্রী নিয়ে আশার ফলে রাস্তার মধ্যেই পিচের টেম্পার নস্ট হয়ে যাচ্ছে। এবিষয়ে জানতে চাইলে উপজেলা এলজিইডির এসও সন্তোষ কুমার দে কোনো তথ্য জানাতে অপারগতা প্রকাশ করে বলেন, এসব দেখা সাংবাদিকদের কাজ নয়। এবিষয়ে জানতে চাইলে মোহনপুর উপজেলা এলজিইডি প্রকৌশলী বলেন, তিনি এ বিষয়ে কোনো লিখিত অভিযোগ পাননি তবে বিস্তারিত খোঁজখবর নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে বলে তিনি জানান।