যশোর-২ চৌগাছা থেকেই নৌকার প্রার্থী দিতে হবে দাবী করলেন — চৌগাছার আ:লীগ নেতারা

0
1594
যশোর-২ চৌগাছা থেকেই নৌকার প্রার্থী দিতে হবে দাবী করলেন --- চৌগাছার আ:লীগ নেতারা
যশোর-২ চৌগাছা থেকেই নৌকার প্রার্থী দিতে হবে দাবী করলেন --- চৌগাছার আ:লীগ নেতারা

বিশেষ প্রতিনিধি ॥

যশোরের চৌগাছায় ২১ আগষ্ট গ্রেনেট হামলায় শহিদদের উদ্দেশ্য আলোচনা সভা ও দোয়া অনুৃষ্ঠান অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এ অনুষ্ঠানে উপজেলা আওয়ামীলীগ ও উপজেলার ১১টি ইউনিয়নের নেতা-কর্মীরা যোগ দেন। পৌরসভার আয়োজনে অনুষ্ঠিত সভায় আওয়ামীলীগের নেতারা আসন্নœ জাতিয় নির্বাচনে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার অঙ্গিকার করলেন। একই সাথে তারা এবার যশোর-২ -চৌগাছা উপজেলা থেকেই নৌকার প্রার্থী দিতে হবে এই দাবী করলেন তাদের দলীয় সভানেত্রী ও মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে।

গতকাল বিকাল ৩টায় চৌগাছা শহরের প্রানকেন্দ্রে মুক্তিযোদ্ধা ভাস্কর্যের মোড়ে পৌর আওয়ামীলীগের সভাপতি জাহিদুর রহমান বকুলের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত আলৈাচনা সভা ও দোয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও উপজেলা চেয়ারম্যান উপজেলা চেয়ারম্যান বীর মুক্তি যোদ্ধা এস এম হাবিবুর রহমান।

তিনি বলেন ১৯৭৫ সালের ১৫ আগষ্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধুসহ তার স্বপরিবারের সবাইকে হত্যা করে স্বাধীনতা বিরোধী বিএনপি-জামাতের সন্ত্রাসীরা। তার পরও তাদের ষড়যন্ত্র আজও থেকে নেই। পরবর্তীতে ২০০৪ সালের ২১ আগষ্ট ঢাকায় আওয়ামীলীগের জনসভায় গ্রেনেট হামলা চালিয়ে আবারও জাতির জনকের কন্যা দলীয় সভা নেত্রী মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনাকে হত্যার চেষ্টা করেছিল। এ সময় তিনি প্রানে বেঁচে গেলেও এ দিন আইভি রহমানসহ দলীয় অসংখ্য নেতা-কর্মী শহিদ হয়েছিল। তিনি তাদের আত্মার মাগফেরাত কামনা করে দলীয় নেতা-কর্মীদের উদ্দেশ্য বলেন এর থেকে আমাদের শিক্ষা নিতে হবে। আগামী জাতিয় নির্বাচনে দলীয় নেতা-কর্মীদের সকলকে নৌকার পক্ষে এখন থেকে কাজ শুরু করতে হবে। বসে থাকার সময় আর নেই।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য দেন সাবেক কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সহ-সম্পাদক ও যশোর জেলা আওয়ামীলীগের নির্বাহী সদস্য এ্যাড, আহসানুল হক আহসান। তিনি বলেন মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার আওয়ামীলীগ সরকার ক্ষমতায় থাকলে দেশে উন্নয়নের জোয়ার শুরু হয়। আর বিএনপি-জামায়াত ক্ষমতায় থাকলে দূর্নিতী ও লুটপাট এবং সন্ত্রাসী কার্যকলাপ বাড়ে। উন্নয়নের ভাটা পড়ে। মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার উন্নয়নের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে হলে দলীয় নেতা-কর্মীদের অতিতের সকল ভূল বুঝাবুঝির অবসান ঘটিয়ে ঐক্য বদ্ধ হয়ে মাঠে কাজ করতে হবে। দলীয় সভানেত্রী যাকেই নৌকা দিবেন তার পক্ষেই আমাদের জনমত গড়ে তুলতে হবে।

উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সিনিয়র সহ সভাপতি আব্দুর সাত্তার,জেলা পরিষদের সদস্য হাবিবুর রহমান হবি, সাবেক যুগ্ন সম্পাদক এস এম সাইফুর রহমান বাবুল,উপজেলা কৃুষক লীগের সভাপতি মান্টার নুর আহাম্মদ, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা ঐক্য পরিষদের সভাপতি এম এ সালাম, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক প্রচার সম্পাদক আব্দুল মান্নান, উপজেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি ও চৌগাছা ইউপি চেয়ারম্যান রফিকুল ইসলাম,উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক আনিসুর রহমান ও যুগ্ন আহবায়ক শরিফুল ইসলাম,ছাত্র লেিগর উপজেলা সভাপতি ইব্রাহিম হোসেন খান প্রমূখ।
এ সভায় তারা দাবী করলেন তাদের দলীয় সভানেত্রী ও মাননীয় প্রধান মন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে। ১৯৬৯ সালে সাধারন নির্বাচনে জাতির জনকের একান্ত সহোচর শহিদ মশিউর রহমান চৌগাছার কৃতি সন্তান একবার জাতিয় সংসদ সদস্য হন।এরপর পর থেকে আজ পর্যন্ত চৌগাছা উপজেলা থেকে কাউকেই দলীয় নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন দেয়া হয়নি এবং কোন জাতিয় সংসদ সদস্য হয়নি। আমরা বরাবর উন্নয়ন থেকে শুরু করে নানা কর্মকান্ডে সুবিধা বঞ্চিত হচ্ছি। বৈষ্যম্যর স্বিকার হচ্ছি।

তাই এবার আমরা আশাবাদী মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বীর মুক্তি যোদ্ধা এস এম হাবিব হোক আর এ্যাড. আহসানুল হক আহসানকে হোক চৌগাছা থেকেই দলীয় প্রতীক নৌকার মনোনয়নের জন্য তিনি অবশ্যই বিবেচনা করবেন।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন জেলা পরিষদের সদস্য শায়লা জেসমিন, সাবেক উপজেলা আওয়ামীরীগের দপ্তর সম্পাদক চুনু বড় মিয়া,স্বরুপদাহ ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক শেখ আনোয়ার হোসেন,নারায়নপুর ইউনিয় আওয়ামলীগের সম্পাদক আমির হোসেন,উপজেলা যুবলীগের যুগ্ন আহবায়ক ও পৌর কাউন্সিলার আনিস উর রহমান,সুখপুকুরিয়া ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ইউপি চেয়ারম্যান তোতা মিয়া, পৌর আলীগ নেতা হাসিবুল হাসানসহ উপজেলা আওয়ামীলীগ, যুবলীগ,কৃষকলীগ,ছাত্রলীগের ১১টি ইউনিয়নের নেতা-কর্মীরা এ অণুষ্ঠানে যোগ দেন।

আলোচনা সভা শেষে ১৫ আগষ্ট ও ২১ আগষ্ট গ্রেনেট হামলায় যারা শহিদ হয়েছেন তাদের সকলের আত্বার মাগফেরাত কামনা করে দোয়া ও মোনাজাত করে উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক সিনিয়র সহ-সভাপতি আব্দুর সাত্তার ।

এ অনুষ্ঠান পরিচালা করেন উপজেলার আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক উপজেলা আওয়ামীলীগের সাবেক যুগ্ন সাধারন সম্পাদক এস এম সাইফুর রহমান বাবুল ও উপজেলা ছাত্রলীগের সাধারন সম্পাদক এস এম শফিকুর রহমান।