২৩ মাস পর সামনে সেই ভুটান

0
245

বার্তাবিডি ডেস্ক : থিম্পুর পর ঢাকা। মাঝে ২৩ মাস। বাংলাদেশের ফুটবলারদের দায়মূক্তির সুযোগ। ২০১৬ সালের ১০ অক্টোবর থিম্পুতে এশিয়ান কাপের প্রাক-বাছাইয়ের ফিরতি ম্যাচে বাংলাদেশকে ৩-১ গোলে হারিয়েছিল ভুটান। সেটিই বাংলাদেশের বিরুদ্ধে পাহাড়ী দেশটির প্রথম জয়। লজ্জার ওই হারের পর দুই দেশের বয়সভিত্তিক দলের কয়েকবার দেখা হলেও জাতীয় দল আর মুখোমুখি হয়নি।

২৩ মাস পর মঙ্গলবার সেই ভুটানের বিপক্ষে খেলতে নামছে লাল-সবুজ জার্সিধারীরা। দক্ষিণ এশিয়ার বিশ্বকাপখ্যাত সাফ চ্যাম্পিয়নশিপের উদ্বোধনী দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে সন্ধ্যা ৭ টায় মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ-ভুটান। টুর্নামেন্ট শুরু হবে বিকেল ৪ টায় পাকিস্তান-নেপালের ম্যাচ দিয়ে।

বাংলাদেশের জন্য এবারের সাফ চ্যাম্পিয়নশিপ বাংলাদেশের জন্য বিরাট চ্যালেঞ্জ। সর্বশেষ তিনটি টুর্নামেন্টের গ্রুপ পর্ব থেকেই বিদায় নিয়েছে বাংলাদেশ। ৯ ম্যাচ খেলে জিতেছে মাত্র একটিতে। দক্ষিণ এশিয়ার এই টুর্নামেন্ট আগে দুইবার আয়োজন করে একবার চ্যাম্পিয়ন, আরেকবার সেমিফাইনালে খেলেছে বাংলাদেশ। তৃতীয়বার কী করবে লাল-সবুজের দেশ?

এ অঞ্চলের ফুটবলের শ্রেষ্ঠত্ব ফিরে পাওয়ার মিশন এমন একটি ম্যাচ দিয়ে শুরু হচ্ছে বাংলাদেশের যে ম্যাচটিতেই বেশি দৃষ্টি মানুষের। যদিও সোমবার টুর্নামেন্টেপূর্ব অফিসিয়াল সংবাদ সম্মেলনে কোচ জেমি ডে’র পাশে বসে দলের অভিজ্ঞ খেলোয়াড় নাসির উদ্দিন চৌধুরী বলেছেন,‘আমাদের চিন্তা শুধু ভুটানকে নিয়ে নয়, পুরো টুর্নামেন্ট নিয়ে। আমরা অতীত ভুলে সাফে ভালো ফলাফলের চেষ্টা করবো।’

এশিয়ান গেমসে অবিস্মরণীয় ফলাফল করায় ফুটবল নিয়ে মানুষের আগ্রহ বেড়েছে। নাসির উদ্দিন চৌধুরী প্রসঙ্গটি টেনে বলেন,‘এশিয়াডে আমরা একটু ভালো ফল করেছি। তাই মানুষের প্রত্যাশাও বেড়েছে। আমরা ৩ মাস প্রস্তুতি নিয়েছি। চেষ্টা করবো ভালো খেলে ম্যাচ জিততে।’

কোচ জেমিও জানেন দেশের মানুষ জয় দেখতে চায়। কিন্তু তিনি এটাও মনে করিয়ে দেন, গত ১৫ বছর ধরে বাংলাদেশ এ টুর্নামেন্ট জিততে পারছে না। বাস্তবতা মেনেই প্রত্যাশার বেলুন ফুলাতে চান এ ইংলিশ কোচ।

ভুটানের কাছে হারের পর ১৭ মাস কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলেনি বাংলাদেশ। গত ২৭ মার্চ ফিফা ফ্রেন্ডলি ম্যাচ দিয়ে আন্তর্জাতিক ফুটবলে ফেরে বাংলাদেশ। তারপর আরো একটি ম্যাচ বাংলাদেশ খেলে ২৯ আগস্ট নীলফামারীতে শ্রীলংকার বিরুদ্ধে। তবে ভুটানের কাছে ওই হারের পর মঙ্গলবার বাংলাদেশের প্রথম কোনো প্রতিদ্বন্দিতামূলক ম্যাচ খেলতে নামছে।

আন্তর্জাতিক ম্যাচে বাংলাদেশের শেষ জয়টি আবার এই ভুটানের বিরুদ্ধেই। ২০১৫ সালে কেরালায় অনুষ্ঠিত সাফ চ্যাম্পিয়নশিপে ভুটানকে ৩-০ গোলে হারানোর পর কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ জেতেনি বাংলাদেশ।

জাতীয় দল ও অলিম্পিক দল মিলিয়ে এ পর্যন্ত ভুটানের সঙ্গে ১২ ম্যাচ খেলেছে বাংলাদেশ। হার ওই একটাই ২০১৬ সালে ১০ অক্টোবর থিম্পুতে। বাকি ১১ ম্যাচের ২টি ড্র হয়েছে, ৯টি জিতেছে বাংলাদেশ।