সাংবাদিকবৃন্দের সাথে কুয়েট ভাইস-চ্যান্সেলর এর মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

0
195
সাংবাদিকবৃন্দের সাথে কুয়েট ভাইস-চ্যান্সেলর এর মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

বি এম রাকিব হাসান, খুলনা ব্যুরো:
খুলনা প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে(কুয়েট) খুলনায় কর্মরত সাংবাদিকবৃন্দের সাথে ভাইস-চ্যান্সেলর এর মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।
গতকাল মঙ্গলবার সকাল ১১টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রশাসনিক ভবনের সভাকক্ষে অনুষ্ঠিত মতবিনিময় সভায় খুলনায় কর্মরত বিভিন্নœ ইলেকট্রনিক ও প্রিন্ট মিডিয়ার সাংবাদিকবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। মতবিনিময় সভায় লিখিত বক্তব্য পাঠ করেন এবং সাংবাদিকদের বিভিন্ন প্রশ্নের জবাব দেন বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. কাজী সাজ্জাদ হোসেন। এসময় বিশ্ববিদ্যালয়ের সিভিল ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডীন (চলতি দায়িত্ব) প্রফেসর ড. মোঃ বজলার রহমান, ইলেকট্রিক্যাল এন্ড ইলেক্ট্রনিক ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মহিউদ্দিন আহমাদ, মেকানিক্যাল ইঞ্জিনিয়ারিং অনুষদের ডীন প্রফেসর ড. মিহির রঞ্জন হালদার, পরিচালক (ছাত্র কল্যাণ) প্রফেসর ড. সোবহান মিয়া ও রেজিস্ট্রার জি এম শহিদুল আলম উপস্থিত ছিলেন।
সংবাদ সম্মেলনে কুয়েট ভাইস-চ্যান্সেলর বলেন, “গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি ও বিশ^বিদ্যালয়ের চ্যান্সেলর আগামী চার বছরের জন্য আমাকে অত্র বিশ^বিশ^বিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর হিসেবে নিয়োগ দেন এবং গত ১৩ আগস্ট, ২০১৮ তারিখে আমি দায়িত্ব গ্রহণ করি”।
তিনি বলেন, দায়িত্বগ্রহণের পরই আমি সাংবাদিকবৃন্দের সঙ্গে মত বিনিময়ের প্রয়োজনীয়তা অনুভব করি। আপনাদের সকলকে সঙ্গে নিয়ে এ বিশ^বিদ্যালয়ের অগ্রযাত্রায় আমরা কাজ করতে চাই। আপনাদের পরামর্শ আমাদের সামনের দিনগুলোকে সুন্দর করবে, অনুপ্রেরনা ও শক্তি যোগাবে। বিশ^বিদ্যালয়ের সাফল্য ও সম্ভাবনাগুলোকে আপনারা দেশের মানুষের নিকট তুলে ধরে বিশ্ববিদ্যালয়কে সামনের দিকে এগিয়ে নিতে আপনাদের সহযোগিতার হাত এগিয়ে দিবেন।
কুয়েট ভিসি আরো বলেন, “১৯৭৪ সালে তিনটি বিভাগ, ১ জন ছাত্রীসহ ১২০ জন ¯œাতক শিক্ষার্থী নিয়ে যাত্রা শুরু করা এই বিদ্যাপীঠে বর্তমানে ৩ টি ইনস্টিটিউট, ২০ টি বিভাগ, ৪৬৩৫ জন ¯œাতক ও ৯৬৭ জন ¯œাতকোত্তর শিক্ষার্থী রয়েছে”।
কুয়েট ভিসি আরো বলেন, “আমাদের লক্ষ্য, এই বিশ্ববিদ্যালয়কে সমৃদ্ধশালী, গবেষণাধর্মী ও উদ্ভাবনীময় বিশ^মানের বিশ^বিদ্যালয়ে পরিণত করা। এজন্য আমাদের লক্ষ আগামী দশ বছরের মধ্যে এ বিশ^বিদ্যালয়কে ডড়ৎষফ জধহশরহম এ একটি উচ্চ অবস্থানে নিয়ে আসা। এছাড়া বিশে^র বিভিন্ন বিশ^বিদ্যালয়ের সাথে সম্মিলিতভাবে কাজ করাসহ দেশের বিভিন্ন শিল্প প্রতিষ্ঠানের সাথে গবেষনা সম্পর্ক বৃদ্ধি করা। এজন্য প্রয়োজন আরও আধুনিক অবকাঠামো, দক্ষ জনবল, বিশ্বমানের গবেষনাগার। শিক্ষা ও গবেষনার এ লক্ষ্য অর্জনে বিশ্ববিদ্যালয়ের অবকাঠামো ও শিক্ষা কার্যক্রম সম্প্রসারণের জন্য একটি উন্নয়ন প্রকল্প এখন পরিকল্পনা কমিশনের চুড়ান্ত অনুমোদনের পর্যায়ে রয়েছে”।
লিখিত বক্তব্য উপস্থাপনের পর বিশ্ববিদ্যালয়ের ভাইস-চ্যান্সেলর সাংবাদিকগণের বিভিন্ন প্রশ্নের উত্তর দেন। এসময় সাংবাদিকবৃন্দ মতবিনিময় সভা আয়োজনের জন্য ভাইস-চ্যান্সেলর ও কুয়েট প্রশাসনকে ধন্যবাদ জানান এবং কুয়েটের অগ্রযাত্রায় সবসময় সঙ্গে থাকার আশাবাদ ব্যক্ত করেন।